শুক্রবার, ০৩ Jul ২০২০, ০৩:৩৬ পূর্বাহ্ন

আমাদের অফার :
অনলাইন নিউজ পোর্টাল মাত্র ৩০০০ টাকা থেকে শুরু - 01770896661
ভারতে করোনায় একদিনেই প্রাণহানি ২ হাজার

ভারতে করোনায় একদিনেই প্রাণহানি ২ হাজার

 

তৃণমুল বাণী ডেক্সঃ মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ভারতে মঙ্গলবার একদিনেই প্রাণ গেল ২ হাজারের বেশি মানুষের। অথচ এর আগে দেশটিতে একদিনে মৃত্যুর সংখ্যা পাঁচশ’ও ছাড়ায়নি কখনো। বুধবার দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এ তথ্য জানিয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে নতুন করোনা শনাক্ত হয়েছে প্রায় ১১ হাজার মানুষের দেহে। মোট আক্রান্ত ছাড়িয়ে গেছে সাড়ে ৩ লাখ। প্রতিদিন সুস্থ হওয়ার সংখ্যাও আশাব্যঞ্জক। তবে সংক্রমণ ও মৃত্যু লাফিয়ে লাফিয়ে বেড়ে যাওয়ায় দেশে লকডাউনের মেয়াদ আরও বাড়ানো হবে কিনা, তা নিয়ে শিগগিরই সিদ্ধান্ত নেবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। খবর বিবিসি ও এনডিটিভির।

ভারতে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় বুধবার সকালের নিয়মিত ব্রিফিংয়ে জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২ হাজার ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে করোনাভাইরাসে। এ নিয়ে ভারতে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ১১ হাজার ৯০৩ জনে। এর আগে ভারতে একদিনে সর্বোচ্চ মারা গেছে ৩৯৫ জন।

এদিন ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছে ১০ হাজার ৯৭৪ জন। এ নিয়ে ভারতে এখন পর্যন্ত মোট করোনা রোগী পাওয়া গেছে ৩ লাখ ৫৪ হাজার। যার মধ্যে এখন ভাইরাস আক্রান্ত আছেন ১ লাখ ৫৫ হাজার ২২৭ জন। সুস্থ হয়ে গেছেন ১ লাখ ৮৬ হাজার ৯৩৪ জন। ৬ হাজার ৯২২ জন সুস্থ হয়েছেন গত ২৪ ঘণ্টায়। ভারতে এ পর্যন্ত ৬০ লাখ ৮৪ হাজারের বেশি মানুষের করোনা পরীক্ষা হয়েছে। মঙ্গলবার একদিনেই পরীক্ষা হয়েছে ১ লাখ ৬৩ হাজার মানুষের।

বিশ্বে সংক্রমণের সংখ্যার দিক থেকে ভারত এখন চার নম্বরে। তালিকায় যুক্তরাষ্ট্র, ব্রাজিল ও রাশিয়ার পরই এখন ভারত। আর মৃত্যুর দিক থেকে আট নম্বরে। তবে এশিয়ায় সংখ্যার দিক থেকে ভারতের ধারে কাছেও নেই কোনো দেশ।

ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় আরও জানায়, দেশের মধ্যে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত রাজ্য হল মহারাষ্ট্র। মঙ্গলবার ওই রাজ্য এবং তার রাজধানী মুম্বাইয়ে যেন আরও দ্রুতগতিতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েছে। একদিনের মধ্যে রাজ্যটিতে আরও ১ হাজার ৩২৮ জনের শরীরে বাসা বেঁধেছে ওই সংক্রামক রোগ। শুধু মঙ্গলবারই সে রাজ্যে মৃত্যু হয়েছে আরও ৮১ জনের। এ নিয়ে রাজ্যে করোনায় মারা গেছে মোট ৫ হাজার ৫৩৭ জন। এরমধ্যে শুধু মুম্বাইতেই মারা গেছে ৩ হাজার ১৬৭ জন।

রাজধানী দিল্লিতেও করোনাভাইরাসের সংক্রমণ খুব উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দিল্লিতে ৪৩৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। এতে গুজরাটকে পেরিয়ে মৃত্যু তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে চলে এল দিল্লি। রাজ্যটিতে মোট মারা গেছেন ১ হাজার ৮৩৭জন। অন্যদিকে গুজরাটে এ পর্যন্ত মারা গেছে ১ হাজার ৫৩৩ জন। দেশে চতুর্থ স্থানে থাকা তামিলনাড়ুতে ৫২৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। মৃত্যুর দিক থেকে দেশে পঞ্চম স্থানে রয়েছে পশ্চিমবঙ্গ। এ রাজ্যে এখনও পর্যন্ত ৪৯৫ জন মারা গেছে করোনায়। এরপর রয়েছে মধ্যপ্রদেশ (৪৭৬), উত্তরপ্রদেশ (৪১৭) ও রাজস্থান (৩০৮)।

মার্চের শেষ দিকে জারি করা লকডাউন প্রায় সপ্তাহ দুয়েক আগে থেকে শিথিল করতে শুরু করে ভারত। আর এতেই এখন আক্রান্তের সংখ্যা প্রতিদিন লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে বলে আশংকা অনেকের। এমন পরিস্থিতিতে আজ ৬ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বৈঠকে বসতে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। আগামী ৩০ জুনের পরও দেশটিতে জারি লকডাউনের মেয়াদ আরও বাড়ানো হবে কিনা সে বিষয়েই মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে আলোচনা করবেন মোদি।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




themesba-zoom1715152249
© All rights reserved © 2019  trinomulbani24.com